ঢাকারবিবার , ৫ জুন ২০২২
  1. অন্য আকাশ
  2. আইন আদালত
  3. আবোল-তাবোল
  4. উদ্যোক্তা
  5. উপসম্পাদকীয়
  6. এক্সক্লুসিভ
  7. কলাম
  8. ক্যারিয়ার
  9. খেলার মাঠ
  10. গণমাধ্যম
  11. গ্যাজেট
  12. জাতীয়
  13. টাকা-আনা-পাই
  14. দেশ জুড়ে
  15. দেশ পরিবার
আহত ৪৫০, গুরুতর ৬০ এর অধিক

আগুনে জ্বলছে সীতাকুণ্ডের বিএম কন্টেইনার, নিহত বেড়ে ১৬

চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ডের বিএম কন্টেইনার ডিপোতে মর্মান্তিক আগুনের ঘটনায় মৃতের সংখ্যা বেড়ে ১৬জনে দাঁড়িয়েছে। এখনও নিয়ন্ত্রণে আসেনি আগুন। 

আহত হয়েছেন অন্তত চার শতাধিক। আজ (৫ জুন) সকালে ঘটনাস্থল থেকে আরও দুইজনের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। বিষয়টি দেশকে নিশ্চিত করেছেন কর্মরত ফায়ার সার্ভিসের এক কর্মকর্তা। এর কিছুক্ষণ পরেই চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল থেকে অগ্নিদগ্ধ আরও একজনের মৃত্যুর খবর আসে।

শনিবার (৪ জুন) রাত সাড়ে ৯টার দিকে এ কন্টেইনার ডিপোতে আগুন লাগে। রাত বাড়ার সাথে সাথে এ আগুনের ঘটনার ভয়াবহতা বাড়ে। ঘটনাস্থলে কাজ করা ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা জানিয়েছেন, পানির উৎসের অভাবে ধীরগতিতে কাজ করতে হচ্ছে তাদের। তাই আগুন নেভাতে সময় লাগছে। তবে আগুনের মাত্রা ক্রমেই কমে আসছে। তবে বেড়েছে ধোঁয়ার তীব্রতা।

কনটেইনার ডিপোতে দগ্ধ ও আহতদের উদ্ধার করে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপালের পাশাপাশি আশপাশের বেসরকারি ক্লিনিক-হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে।

চট্টগ্রামের সকল চিকিৎসকের ছুটি বাতিল করা হয়েছে। আর সকল চিকিৎসককে হাসপাতালে যোগ দিতে নির্দেশ দিয়েছে চট্টগ্রামের জেলা সিভিল সার্জনের কার্যালয় থেকে নির্দেশ দেয়া হয়েছে। পাশাপাশি স্থানীয় বেসরকারি হাসপাতালেও দগ্ধদের চিকিৎসা সেবা দিতে বলেছে সিভিল সার্জনের কার্যালয়।

জানা গেছে, হাসাপাতালে রোগীদের চিকিৎসা সেবা দিতে এ পজেটিভ, এ নেগেটিভ, এবি পজেটিভ এবং ও পজেটিভ রক্তের সংকট দেখা গিয়েছে। অবশ্য স্থানীয় স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনগুলো এগিয়ে আসছে সহযোগিতার জন্য।

সর্বশেষ পাওয়া খবর অনুযায়ী, আগুন নেভাতে কাজ করছে ফায়ার সার্ভিসের ২০টি ইউনিট। ইতোমধ্যে কাজ করতে গিয়ে ফায়ার সার্ভিসের ৯জন কর্মী আহত হয়েছেন। ঘটনাস্থলে সহযোগিতা করার জন্য আশপাশের কুমিল্লা, নোয়াখালী, ফেনী ও লক্ষ্মীপুরের ফায়ার সার্ভিসের বিভিন্ন স্টেশনের কাছে সহযোগিতা চাওয়া হয়েছে। ইতোমধ্যে এসব স্টেশন থেকে ঘটনাস্থলে ইউনিট যুক্ত হয়েছে।

বিএম কনটেইনার ডিপোতে আমদানি ও রফতানির বিভিন্ন মালামালবাহী ৫০ হাজার কনটেইনার আছে বলে জানা গেছে। তাতে রাসায়নিক দ্রব্যের কন্টেইনারও রয়েছে। কনটেইনার ডিপোতে কিছুক্ষণ পরপর বিস্ফোরণের শব্দ শোনা যাচ্ছে। এরমধ্যে চার কিলোমিটার দূরেও শোনা গেছে কোনো কোনো বিস্ফোরণের শব্দ। বিস্ফোরণে আশপাশের এলাকার বিভিন্ন ভবনের কাচ ভেঙে গেছে।

বিস্ফোরণে এক পুলিশ সদস্যের পায়ের গোড়ালি বিচ্ছিন্ন হয়ে গেছে। এ পুলিশ সদস্যের নাম তুহিন। তিনি সীতাকুণ্ড থানায় কনস্টেবল পদে দায়িত্বে রয়েছেন। পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, আগুনের এ ঘটনায় অনন্ত নয়জন সদস্য আহত হয়েছেন। এরমধ্যে সাতজন শিল্প পুলিশ এবং দুইজন সীতাকুণ্ড থানার।

সর্বশেষ - আইন আদালত