ঢাকাশুক্রবার , ৩০ জুলাই ২০২১
  1. অন্য আকাশ
  2. আইন আদালত
  3. আবোল-তাবোল
  4. উদ্যোক্তা
  5. উপসম্পাদকীয়
  6. এক্সক্লুসিভ
  7. কলাম
  8. ক্যারিয়ার
  9. খেলার মাঠ
  10. গণমাধ্যম
  11. গ্যাজেট
  12. জাতীয়
  13. টাকা-আনা-পাই
  14. দেশ জুড়ে
  15. দেশ পরিবার

ফরিদগঞ্জে অনাথ খুন জমি সংক্রান্ত বিরোধে, আটক ১

মফস্বল সম্পাদক
জুলাই ৩০, ২০২১ ৭:৩৬ অপরাহ্ণ


ফরিদগঞ্জ উপজেলার জেলে অনাথ চন্দ্র দাস হত্যকান্ডের রহস্য উন্মোচন করেছে চাঁদপুর পিবিআই। লাশ উদ্ধারের ৫ দিনের মধ্যে রহস্যের ভেদ করতে সক্ষম হয় তারা। বৃহষ্পতিবার (২৯ জুলাই) রাতে পিবিআই চাঁদপুরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার জুনায়েত কাউছার সংবাদ বিজ্ঞিপ্তির মাধ্যমে বিষয়টি নিশ্চিত করেন।



পিবিআই জানায়, জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে অর্থের বিনিময়ে তাকে হত্যা করে লাশ খালের পানিতে ফেলা দেয়া হয়। ঘটনার সাথে জড়িত সন্দেহে আটক পাইকপাড়া দক্ষিণ ইউনিয়েনের সেকান্দর গাইন ওরফে শেখার ছোট ছেলে সোহাগকে পিবিআই আটকের পর সে হত্যার কথা স্বীকার করে এবং আদালতে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দেয়। সোহাগের কাছ থেকে অনাথ চন্দ্র দাসের ব্যবহৃত মুঠো ফোনটি উদ্ধার করে পিবিআই। এই হত্যকান্ডের সাথে জমি সংক্রান্ত বিরোধের মুল হোতা সুবল দাসসহ ৪জন জড়িত বলে জানা গেছে।


জানা গেছে, পাইকপাড়া দক্ষিণ ইউনিয়েনের খুরুমখালী গ্রামের জেলে অনাথ চন্দ্র দাস প্রায় ১৮ বছর পুর্বে নিজের চাচাতো ভাই সুবল দাসের কাছ থেকে ৩শতক জমি কিনেন। সেই ক্রয়কৃত জমি তিনি শেষ পর্যন্ত বুঝে পাননি। কিন্তু জমি দখল স্বত্ব বুঝে পেতে বছরের পর পর সালিশ বৈঠকসহ সকল কিছুই করেছেন। ত্রিশ হাজার টাকা জমির জন্য খরচ করেছেন প্রায় লাখ টাকা। শিকার হয়েছের মারধরের।


স্থানীয় লোকজন জানান, গত ১৯ জুলাই সোমবার সকালে তিনি কড়ৈতলীর পাশ্ববর্তী শাহী বাজারে মাছ বিক্রি করতে যান। মাছ বিক্রি করে তিনিসহ লোকজন এসে কড়ৈতলী বাজারের একটি চায়ের দোকানে বসে চা খান। পরে সেখানেই তার কাছে একটি ফোন আসে। এরপর তার সঙ্গীদের কাছে তার কাজ আছে বলে চলে যান। এরপর থেকে তার আর খোঁজ মিলেনি। শেষ পর্যন্ত নিখোঁজের সাতদিন পর তার অর্ধগলিত দেহ উদ্ধার করে ফরিদগঞ্জ থানা পুলিশ। এরপর ফরিদগঞ্জ থানায় নিহতের ছেলে সুভাষ দাস মামলা দায়ের করে। একই সাথে ছায়াতদন্তে নেমে পিবিআই হত্যকান্ডের রহস্যজাল ভেদ করে।

ফরিদগঞ্জে জেলের গলিত লাশ উদ্ধার

 

সর্বশেষ - আইন আদালত