ঢাকাবৃহস্পতিবার , ৯ সেপ্টেম্বর ২০২১
  1. অন্য আকাশ
  2. আইন আদালত
  3. আবোল-তাবোল
  4. উদ্যোক্তা
  5. উপসম্পাদকীয়
  6. এক্সক্লুসিভ
  7. কলাম
  8. ক্যারিয়ার
  9. খেলার মাঠ
  10. গ্যাজেট
  11. জাতীয়
  12. টাকা-আনা-পাই
  13. দেশ পরিবার
  14. দেশ ভাবনা
  15. দেশ সাহিত্য

শ্রীমঙ্গলে বালোচরে কাশফুলে পর্যটকের ভিড়

কাউছার আহমেদ রিয়ন, শ্রীমঙ্গল প্রতিনিধি
সেপ্টেম্বর ৯, ২০২১ ২:১৮ অপরাহ্ণ


শরৎকাল যেন ধবধবে সাদা ফুলের অরণ্যের দিন। এই সাদা রং মনকে রাঙ্গিয়ে তুলে নতুন রূপে। তাইতো পর্যটন নগরী শ্রীমঙ্গলের প্রকৃতিতে কে আরো সুন্দর রূপে সাজাতে ফুটে উঠেছে কাশফুল। শরতের এ রূপ যে কাউকে মুগ্ধ করে তুলবে।



মৃদু বাতাসে ঢেউ খেলানো কাশফুল দেখে মনটা ভরে ওঠে আনন্দে। তাইত আত্মতৃপ্তি আর মুগ্ধতায় নিজেকে নব রূপে সাজাতে ছুটে চলা শরতের কাশফুলের কাছে। শ্রীমঙ্গল শহর থেকে ভানুগাছ সড়ক ধরে কিছুদূর এগুলেই বধ্যভূমি-৭১, যেখানে গেলে মনে করিয়ে দেয় স্বাধীনতা যুদ্ধে শ্রীমঙ্গলের মুক্তিযোদ্ধাদের আত্মত্যাগের আর ইতিহাসের কথা।

সেখান থেকে শুরু হয় সারি সারি চা বাগান বাগানের ভিতর শ্রমিকরা সবুজ চা- দুটি পাতা একটি কুঁড়ি সংগ্রহ করছে। দেখে মনে হবে যেন একেকটি প্রতিমা দাঁড়িয়ে আছে । মাথার উপর নীল আকাশ তারি মাঝে কালো মেঘের ঢেউ এ যেন প্রকৃতি আর বিধাতার খেলা । সবুজ চা-বাগানের মাঝ দিয়ে পিচঢালা রাস্তা। এ পথ ধরে আধা কিলোমিটার সামনে গেলেই দেখা মিলবে ভুড়ভুড়িয়া ছড়ার পারে কাশবনের। মৃদু বাতাসের সাথে খেলা করছে কাশকন্যারা।

সরজমিনে গিয়ে দেখা যায় দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে আসা পর্যটকরা ভিড় করছেন ভুড়ভুড়িয়া ছড়ার পারে এই কাশ বনে। কেউ ছবি তুলছেন আপন মনে, আবার কেউ জল খেলা করছেন ছড়ায় নেমে। প্রতি বছর আগস্টের শেষের দিকথেকে অক্টোবরের প্রথমদিকে এই ফুল ফোটা শুরু হয়। তাই বছরের দুই মাস পর্যটক ও স্থানীয় মানুষের ভীড় লেগেই থাকে।


ঘাসফুল দেখতে আসা ইব্রাহিম বলেন প্রায় প্রতি বছরই এখানে চলে আসি কাশফুল দেখতে কাশফুলের সাথে ছবি তুললে ছবিটাও অনেক সুন্দর হয়। রাসেল আহমেদ বলেন আমি প্রায় সময় এখানে এসে সময় কাটাই এখানে আসলে মনটা অনেক ভালো হয়ে যায় এবং সময় খুব ভালো কাটে। শ্রীমঙ্গল পর্যটক সেবা সংস্তার সাংগঠনিক সম্পাদক এস কে দাস সুমন বলেন শ্রীমঙ্গলে আশা পর্যটক ও স্থানীয় মানুষের কাছে প্রায় দুই মাস জায়গাটি আকর্ষণীয় থাকে,কিন্তুু কাশফুল ঝরে পড়ার পড় এখানে আর কেউ যান না।তিনি আরো জানান যেহেতু জায়গাটি চা বাগান কর্তৃপক্ষের আওতাধীন তাই তাদের বিভিন নিয়ম-নীতির বাইরে গিয়েও পর্যটকদের জন্য এই দুই মাস একটু ছাড় দেন।


দেশের নানান প্রান্ত থেকে আশা পর্যটকরা নীল আকাশের নিচে সবুজ চা বাগানের ছড়ার পাশে সুদূর বালুচরে জেগে উঠা শ্রীমঙ্গলের শ্রী-কে আরো বৃদ্ধি করতে ঘন সাদা কাশবনে ছুটে আসেন। বেলি, শিউলি, শাপলা ফুলের অপরূপ সৌন্দর্য নিয়ে আগমন শরৎ কালের। গ্রীষ্মের চোখ ধাঁধানো রোদ আর বর্ষার অঝোর ধারার শ্রাবণ ঢলের পর আগমন এই শরতের। বৃষ্টি আর রৌদ্র ছায়ার খেলার মধ্য দিয়ে ধবধবে সাদা ফুলে ভরে ওঠেছে শ্রীমঙ্গলে কাশবন।

সর্বশেষ - সোশ্যাল মিডিয়া

আপনার জন্য নির্বাচিত

আলো আসবেই

শেখ হাসিনা এক জীবন্ত কিংবদন্তীর নাম : তথ্যমন্ত্রী

রাঙ্গুনিয়ায় ফাস্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংকের উপশাখা উদ্বোধন 

এম বখতেয়ার উদ্দিন কাতালগঞ্জ প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সভাপতি নির্বাচিত

রৌমারীতে কৃষকের মুখে হাসি : কাটা মুড়ি থেকে ধান উৎপাদন 

চাঁদপুরের শামীমের ব্যাটে মান রক্ষা বাংলাদেশের

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় অটো চালককে হত্যা

১৯ আগস্ট থেকে সব বাধা উঠে যাচ্ছে, চলবে বাস, ট্রেন ও নৌযান

সাংবাদিকদের নামে মামলার প্রতিবাদে ঝিনাইদহে মানববন্ধন

ওসির নাম্বার ক্লোন করে চেয়ারম্যানের টাকা হাতিয়ে নিলো প্রতারক চক্র

টিকা দিতে ফের শিক্ষার্থীদের তথ্য চেয়েছে জবি

চিতলমারীতে শেখ কামালের জন্মবার্ষিকী পালিত