ঢাকাবৃহস্পতিবার , ২৬ আগস্ট ২০২১
  1. অন্য আকাশ
  2. আইন আদালত
  3. আবোল-তাবোল
  4. উদ্যোক্তা
  5. উপসম্পাদকীয়
  6. এক্সক্লুসিভ
  7. কলাম
  8. ক্যারিয়ার
  9. খেলার মাঠ
  10. গ্যাজেট
  11. জাতীয়
  12. টাকা-আনা-পাই
  13. দেশ পরিবার
  14. দেশ ভাবনা
  15. দেশ সাহিত্য

জিনের নির্দেশে পানিতে ফেলে শিশুকে হত্যা, মা আটক

সাইফুল ইসলাম, ভেড়ামারা প্রতিনিধি
আগস্ট ২৬, ২০২১ ১১:২৬ অপরাহ্ণ


কুষ্টিয়ার ভেড়ামারায় জিনের নির্দেশে পানিতে ফেলে নিজ শিশু সন্তান ইয়াকুব ( ৪) কে হত্যার অভিযোগ উঠেছে মা আঁখি (২০) খাতুনের বিরুদ্ধে।



পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, প্রায় দেড় মাস ধরে শিশুটিকে হত্যার জন্য চেষ্টা করেছেন তিনি। শেষে সুযোগ পেয়ে বাড়ির সামনে গর্তের পানিতে ফেলে নিজ সন্তানকে হত্যা করলেন আঁখি খাতুন।


বুধবার বিকেলে কুষ্টিয়া জেলার ভেড়ামারা উপজেলার ধরমপুর ইউনিয়নের চর দমকা গ্রামে এই ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় শিশুটির হত্যাকারী মা আঁখি খাতুনকে পুলিশ আটক করেছে। তিনি মোহন আলীর স্ত্রী।


এলাকাবাসী জানান, নিহত শিশুটির মা আঁখি খাতুন একজন মানসিক রোগী। তিনি দেড় মাস ধরে নিজের শিশুসন্তানকে বিভিন্নভাবে হত্যার চেষ্টা করে আসছিলেন। সেকারণে শিশুটির দাদি নিজের কাছে রেখে শিশুটিকে লালন-পালন করছিলেন। বুধবার নিহত শিশুটিকে তার মা দাদির কাছ থেকে নিয়ে বাড়ির বাইরে এসে বাড়ির পাশে পানিভর্তি গর্তের ভেতরে ফেলে সন্তানকে হত্যা করেন।


খবর পেয়ে ভেড়ামারা থানা পুলিশের এসআই জিল্লুর রহমান ঘটনাস্থলে গিয়ে শিশুটির মরদেহ উদ্ধার করে এবং ঘাতক মাকে আটক করে থানায় নিয়ে আসেন।


এ ব্যাপারে ভেড়ামারা থানার ওসি (তদন্ত) জহুরুল ইসলাম জানান, পানিতে ফেলে নিজ সন্তানকে হত্যার খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে যায়। ঘটনাস্থল থেকে শিশুটির মরদেহ উদ্ধার করে এবং ঘাতক মাকে আটক করা হয়। পরে ঘটনায় ভেড়ামারা থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করা হয়। মামলা নম্বর- ২৪ তারিখ ২৬-৮-২১। ঘাতক মা আঁখি খাতুনকে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে এবং শিশুটির মরদেহ মর্গে পাঠানো হয়েছে।


প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে আঁখি খাতুন পুলিশকে জানান, জিনের নির্দেশে তিনি শিশুকে হত্যা করেছেন।

সর্বশেষ - সোশ্যাল মিডিয়া