ঢাকাশুক্রবার , ২৭ আগস্ট ২০২১
  1. অন্য আকাশ
  2. আইন আদালত
  3. আবোল-তাবোল
  4. উদ্যোক্তা
  5. উপসম্পাদকীয়
  6. এক্সক্লুসিভ
  7. কলাম
  8. ক্যারিয়ার
  9. খেলার মাঠ
  10. গ্যাজেট
  11. জাতীয়
  12. টাকা-আনা-পাই
  13. দেশ পরিবার
  14. দেশ ভাবনা
  15. দেশ সাহিত্য

খিলি পান বিক্রি করে স্বাবলম্বী রমজান

মোঃ শাহানুর আলম, ঝিনাইদহ প্রতিনিধি
আগস্ট ২৭, ২০২১ ৪:০০ অপরাহ্ণ


জীবন যুদ্ধে জীবিকার তাগিদে মানুষ নানা রকম পেশা বেছে নেয়। আর যদি মেধা, শ্রম ও ইচ্ছাশক্তি থাকে তাহলে যে কোন কাজেই সফলতা অর্জন সম্ভব।


এমনই এক বাস্তব দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন ঝিনাইদহের মহেশপুর উপজেলার রাখালভোগা গ্রামের জয়নাল মোল্লার ছেলে রমজান আলী। তেমন লেখাপড়া জানেন না তিনি ২ বছর যাবত পান বিক্রি করছেন। বর্তমানে তার পানের স্বাদ নিতে ছুটে আসেন মহেশপুর উপজেলাসহ বিভিন্ন এলাকার পান প্রিয় ভক্তরা। এছাড়াও পার্শ্ববর্তী কোটচাঁদপুর ও জীবননগর উপজেলার মানুষ আসানে তার দোকেন পান খেতে। এমনকি রাজধানী ঢাকা থেকে এই এলাকার কোন মানুষ ঘুরতে আসলে, ছুটে আসেন রমজানের পানের দোকানে। সরেজমিনে তার পানের দোকানে গিয়ে দেখা যায় ফতেপুর শিশুতলা বাজারে যাত্রী ছাউনির পাশে ছোট্ট টোং দোকানে রমজান আলী পান বিক্রি করেন।

বিভিন্ন মসলাপাতি দিয়ে পান বানিয়ে ৫ থেকে ১০টাকা দামে তা বিক্রয় করেন। প্রতিদিন ৩/৪ হাজার টাকার পান বিক্রি করে থাকেন তিনি। খরচ বাদে প্রতিমাসে ২৫/৩০হাজার টাকা আয় হয় বলে জানালেন তিনি। রমজান আলী বলেন অল্প পুজিতে তার পানের ব্যবসায় ভালোয় চলছে। তার প্রধান খরিদদার ঢাকা পরিবহনের ড্রাইভাররা। দর্শনা-ঢাকা রুটের পরিবহনে তার বেঁচা কেনা বেশী হয়। এখন দুর-দুরান্ত থেকে লোকজন পান খেতে ফতেপুর শিশুতলা বাজারে চলে আসে। ১৯৭৫ সালের আগে এই বাজারের অস্তিত্ব ছিল না। চার দশকের মধ্যে বাজারের শ্রীবৃদ্ধি হয়েছে। রমজানের পানের দোকান বাজারের পরিচিতি দিনে দিনে চারিদিকে আরও ছড়িয়ে দিচ্ছে।

সর্বশেষ - সোশ্যাল মিডিয়া