ঢাকাসোমবার , ৩০ আগস্ট ২০২১
  1. অন্য আকাশ
  2. আইন আদালত
  3. আবোল-তাবোল
  4. উদ্যোক্তা
  5. উপসম্পাদকীয়
  6. এক্সক্লুসিভ
  7. কলাম
  8. ক্যারিয়ার
  9. খেলার মাঠ
  10. গ্যাজেট
  11. জাতীয়
  12. টাকা-আনা-পাই
  13. দেশ পরিবার
  14. দেশ ভাবনা
  15. দেশ সাহিত্য

আজমিরীগঞ্জে খানাখন্দে ভরা সড়কে ঝুঁকি নিয়ে চলাচল

মো আবু হেনা, আজমিরীগঞ্জ প্রতিনিধি
আগস্ট ৩০, ২০২১ ১১:১৬ পূর্বাহ্ণ


হবিগঞ্জের আজমিরীগঞ্জ উপজেলা সদর থেকে কাকাইলছেও পর্যন্ত মাত্র ৭ কিলোমিটার সাব মার্জেবল সড়ক ক্ষতিগ্রস্থ্য হয়ে চলাচলে দুর্ভোগ পোহাচ্ছে এলাকাবাসী। সড়কের বিভিন্ন স্থানে ঢালাই উঠে ছোটবড় গর্ত ও খানাখন্দের সৃষ্টি হয়েছে বৃষ্টি হলেই খানাখন্দে কাঁদা ও গর্ত গুলোতে পানি জমে থাকে। এতে ছোট যানবাহনগুলো প্রায়ই দুর্ঘটনার শিকার হয়।



সরেজমিনে গিয়ে দেখাযায়, সাত কিলোমিটার সড়কজুড়ে কিছুক্ষন পরপর ছোটবড় গর্ত ও খানাখন্দ। শমিপুর গ্রাম সংলগ্ন এলাকা সড়টির অবস্থা অত্যন্ত নাজুক। সরকারি ভাবে মেরামত না হওয়ায় স্থানীয় ব্যাটারিচালিত ইজিবাইক চালকরা ইট ফেলে গর্তগুলো ভরাট করছেন।


এলাকাবাসী জানান, আওয়ামী লীগ সরকার ক্ষমতায় আসার পর দুই দফায় সাত কিলোমিটার সড়কটি ইট সলিং থেকে সাব মার্জিবল রাস্তায় রুপান্তিত করা হয়। আজমিরীগঞ্জ থেকে কাকাইলছেও যোগাযোগের একমাত্র রাস্তা এটি।কয়েক বছর ধরেই সড়কটি খানাকন্দ ও গর্ত। স্থানীয় সরকার ও প্রকৌশলী অধিদপ্তর (এলজিইডি) একবার কিছু অংশ মেরামত করলেও পরবর্তীতে আর মেরামত হয়নি। বৃষ্টির পানি জমে যানবাহনে চলাচলে ভোগান্তির সৃষ্টি হচ্ছে। ফলে উপজেলা সদরের সঙ্গে যোগাযোগের ভোগান্তিতে পড়েছেন কাকাইলছেও ইউনিয়নবাসী। পথচারিদেরও দুর্ভোগ হচ্ছে।


ব্যাটারিচালিত ইজিবাইক চালক শুকুর মিয়া বলেন, রাস্তাটির বেহাল দশার কারনে চলাচলে দুর্ভোগ হয়। কয়েকদির পরপরই গাড়ি ক্ষতিগ্রস্থ্য হলে সেটি মেরামত করতে হয়। সরকারি ভাবে সড়কটি মেরামত না হওয়ায় আমরা নিজেরা চাঁদা তুলে সড়কটি মেরামতের উর্দ্যােগ নিয়েছি।


এ বিষয়ে এলজিইডি’র উপজেলা প্রকৌশলী তানজির আহমেদ সিদ্দিকি বলেন, সড়কটি মেরামতের জন্য সম্ভাব্য ব্যয় নির্ণয় করা হয়েছে। একমাসের মধ্যেই একটি প্রকল্পের অনুমোদন সম্ভাবনা রয়েছে।

সর্বশেষ - সোশ্যাল মিডিয়া